March 3, 2021, 5:36 pm


কচুয়ায় পৌরসভার নির্বাচনে কাউন্সিলর প্রার্থী সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ আহত ১০

কচুয়া প্রতিনিধি:
কচুয়া পৌরসভার নির্বাচন চলাকালে তুচ্ছ ঘটনা কেন্দ্র করে  কাউন্সিলর প্রার্থী সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ সময় ব্যাপক ধাওয়া-পাল্টা ও একটি কনফেকশনারি  দোকান  ভাংচুর করা হয়েছে। সংঘর্ষের ঘটনায় কমপক্ষে ১০ জন আহত হয়েছেন। গত রবিবার (১৪ ফেব্রুয়ারি)  পৌরসভা নির্বাচনে ভোটগ্রহণ চলাকালে ২নং ওয়ার্ডের ভোট কেন্দ্র  ঘটনা ঘটে।
আহতরা হচ্ছেন, কাউন্সিল প্রার্থী মো.তাজুল ইসলাম রাজু’র সমার্থক কচুয়া পৌরসভার কোয়াচাঁদপুর এলাকার পিতা.অলি উল্লাহ ছেলে মো.মোহাম্মদ গাজী, আমিন গাজী, মজিবুর রহমান ছেলে রাসেদ হোসেন, মো.রফিকুল ইসলাম ছেলে মো.রাসেল হোসেন, মো.রফিকুল ইসলাম, হালিম গাজী মেয়ে সানজিদা আক্তার ও কাউন্সিলর প্রার্থী মো. ইউসুফ আলী (ডালিম)  এর সমর্থক মো কবির হোসেনসহ ১০জন আহত হয়েছে।  আহতদেরকে কচুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়।
জানা যায়, ৪র্থ ধাপে অনুষ্ঠিত কচুয়া পৌরসভা নির্বাচনে  রবিবার সকাল ৮টায় ভোটগ্রহণ শুরু হয়। শুরু থেকে শান্তিপূর্ণভাবে ভোটগ্রহণ চলে কিন্তু দুপুর সোয়া ১২টার সময় ২নং ওয়ার্ড কোয়াচাঁদপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের পশ্চিম পাশে  কাউন্সিলর প্রার্থী আব্দুল মালেক  (ডালিম) ও মো.তাজুল ইসলাম রাজু (পাঞ্জাবি)  সমর্থকদের মধ্যে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে।
এ সময় দু’পক্ষের সমর্থকরা হাতাহাতি ও ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ায় লিপ্ত হয়। এ ঘটনায় উভয়পক্ষের কমপক্ষে ১০ জনের অধিক আহত হয়। ঘটনার পরপর আইনশৃংখলা বাহিনী এগিয়ে আসলে পরিস্থিতি শান্ত হয়।
এদিকে, গত রবিবার  সকাল থেকে কয়েকটি ভোট কেন্দ্র পরিদর্শনে দেখা যায়, প্রায় প্রতিটি কেন্দ্রেই ভোটারদের উপস্থিতি ছিল লক্ষ্যণীয় বিশেষ করে নারী ভোটারের উপস্থিতি ছিল বেশি।
সকালে বালিয়াতলী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে কেন্দ্রে ভোট দিয়ে বেরিয়ে আসার সময় লোকমান (৮০) নামে এক বৃদ্ধ ভোটার কোনো ধরনের ঝামেলা ছাড়াই লাইনে দাঁড়িয়ে তার ভোট প্রদান করতে পেরেছেন জানিয়ে বলেন, “সুন্দর পরিবেশে ভোট হচ্ছে” । একই কেন্দ্রে আমেনা বেগম  (৬৫) নামে অপর এক নারী ভোটারও ভোট দিয়ে সন্তুষ্টি প্রকাশ করেন।
পরে পৌরসভার ২নং ওয়ার্ড কোয়া চাঁদপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে কেন্দ্র ভোট সংগ্রহ  শেষে বিপুল ভোটে মো.তাজুল ইসলাম রাজু (পাঞ্জাবি) প্রতীকে বেসরকারি ভাবে নির্বাচিত হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


সংবাদ পড়তে লাইক দিন ফেসবুক পেজে