December 5, 2020, 3:17 pm


Ethiopians fleeing intense fighting in their homeland of Tigray, gather in the bordering Sudanese village 8, east of the town of Gadaref, on November 13, 2020. - Ethiopia's Prime Minister Abiy Ahmed, winner of last year's Nobel Peace Prize, ordered military operations in Tigray last week, shocking the international community which fears the start of a long and bloody civil war. (Photo by Ebrahim HAMID / AFP)

ইথিওপিয়ার সংঘাতে ১০৪ বাংলাদেশী গার্মেন্স শ্রমিক আটক

নিজস্ব প্রতিনিধি:

ইথিওপিয়ার সংঘাত কবলিত টাইগ্রে অঞ্চলে আটকে পড়া ১০৪ প্রবাসী শ্রমিককে অন্যত্র সরিয়ে নিতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে বাংলাদেশের একটি গার্মেন্ট কোম্পানি।

ডিবিএল ইন্ডাস্ট্রিজ পিএলসি নামের ওই কোম্পানির ব্যবস্থাপনা পরিচালক এম এ জব্বার জানান, আমাদের কারখানা চত্বরে বোমা ফেলা হয়েছে এবং ওই অঞ্চল ছেড়ে যাওয়ার জন্য শ্রমিকদের সহায়তার প্রয়োজন।

গণমাধ্যমকে তিনি বলেন, আমাদের কর্মীরা এখন নিরাপদে আছেন। বিরোধপূর্ণ অঞ্চল থেকে শ্রমিকদের সরিয়ে নিতে আমরা পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কে অনুরোধ করছি।

ট্রাইগ্রের পরিস্থিতি এখনো অস্থিতিশীল অবস্থায় রয়েছে। এছাড়া সহিংসতা যেকোনো সময় আরও বাড়তে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

ইথিওপিয়ায় বাংলাদেশ মিশনে নিযুক্ত রাষ্ট্রদূত নজরুল ইসলাম বলেন, দূতাবাস পরিস্থিতি নিয়মিত পর্যবেক্ষণ করছে। আটকা পড়া শ্রমিকদের সরিয়ে নেয়ার জন্য আমরা ইথিওপিয়ায় বাংলাদেশ দূতাবাসের কর্মকর্তাদের প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দিচ্ছি।

প্রাথমিকভাবে আমরা তাদের নিরাপদ অঞ্চলে স্থানান্তরের চেষ্টা করছি বলেও জানান এই কূটনীতিক।

শনিবার ইথিওপিয়া সরকার বলছে, ক্ষমতাসীন দলের অনুগত বাহিনী উত্তরাঞ্চলীয় টাইগ্রে থেকে প্রতিবেশী আমহারা অঞ্চলে গোলা নিক্ষেপ করছে।

এতে চলমান লড়াই আশপাশের এলাকায় ছড়িয়ে পড়তে পারে বলেও ধারণা করা হচ্ছে। এমন এক সময় এই অভিযোগ আসছে, যখন হাজার হাজার ইথিওপীয় সীমান্ত পাড়ি দিয়ে সুদানে চলে যাচ্ছেন। সাহায্যকর্মীরাও টাইগ্রে অঞ্চলে ঢুকতে চাচ্ছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


সংবাদ পড়তে লাইক দিন ফেসবুক পেজে