July 13, 2020, 1:31 am


চাঁদপুরে দু’গ্রুপের মাদক ব্যবসায়ীদের সংঘর্ষে নিহত পথচারী যুবক শামীম গাজী। পাশে নিহত শামীম গাজীর ৯ মাস বয়সি শিশু লামিম।

চাঁদপুরে মাদক ব্যবসায়ীদের আধিপত্যকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষে আহত পথচারি যুবকের মৃত্যু

বিশেষ প্রতিনিধি:

চাঁদপুর শহরের পুরান বাজারে দু’দল মাদক ব্যবসায়ীর মধ্যে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে সংগঠিত রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের ঘটনায় আহত পথচারি হিলশা আবাসিক হোটেলের সিরিপসনিস্ট মধ্য শ্রীরামদী গ্রামের তাজু সর্দারের ছেলে শামীম গাজী মৃত্যুবরণ করেছে। মঙ্গলবার সকালে ঢাকা মেডিকেলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শামীম মৃত্যুবরণ করে।

সোমবার (২৯ জুন) সন্ধ্যা থেকে মধ্য রাত পর্যন্ত চাঁদপুরের মাদক ব্যবসায়ীদের আধিপত্যকেন্দ্র দফায় দফায় দুই গ্রুপের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। সংঘর্ষে শামীশ গাজী নামক যুবক আহত হয়।

সংঘর্ষের ঘটনায় পুরান বাজার পুলিশ ফাঁড়ি নিয়ন্ত্রণ করতে ব্যর্থ হওয়ায় চাঁদপুর মডেল থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে ৭ রাউন্ড গুলি নিক্ষেপ করে। পরে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে।

স্থানীয় এলাকাবাসী জানায়, চাঁদপুর শহরের পুরান বাজার একসময় মাদকের স্বর্গরাজ্য পরিণত হয়েছিল। মাদক ব্যবসায়ীরা ঐ এলাকায় অবস্থান করে বিভিন্ন জায়গায় মাদক পাচার ও বিক্রি করত। সম্প্রতি মাদকের বিরুদ্ধে পুলিশের সাঁড়াশি অভিযান শুরু হলে মাদক বিক্রি ও পাচার কিছুটা কমে আসে।

বেশ কয়েক বছর পুরান বাজার মাদক শূন্য হওয়ায় স্থানীয় এলাকাবাসী শান্তিতে বসবাস করতে পেরেছেন। ওই পুলিশ কর্মকর্তা ভয় মাদক ব্যবসায়ীরা ঘরবাড়ি ছেড়ে এলাকার থেকে পালিয়ে গেছে।

পুরান বাজার পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ ইন্সপেক্টর জাহাঙ্গীর আলম বদলি হওয়ার পর আবারো পুরান বাজার মাদকের স্বর্গরাজ্যে পরিণত হয়েছে।

চাঁদপুরের ফেনসিডিল, ইয়াবা ও গাঁজা ব্যবসায়ী হেলাল কুমিল্লায় মাদকসহ গ্রেপ্তার হওয়ার পর জেল খেটে বেড়িঞয়ে এসে পুরান বাজারে মাদক বিক্রি শুরু করে।

মাদক ব্যবসার ভাগবাটোয়ারা ও টাকা নিয়ে কয়েকদিন আগে ১ নং ওয়ার্ডের মাদক ব্যবসায়ী হেলালের নেতৃত্বে বেশ কিছু সন্ত্রাসী অতর্কিতভাবে হামলা চালিয়ে ২ নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা সবুজকে কুপিয়ে হাত ভেঙ্গে রক্তাক্ত জখম করে। দীর্ঘদিন সে হাসপাতলে ভর্তি থাকলেও সেই ঘটনায় থানায় অদৃশ্য কারণে মামলা নেয়নি পুলিশ।

সেই ঘটনা কেন্দ্র করে সোমবার সন্ধ্যা থেকে রাত পর্যন্ত ঐ দুই ওয়ার্ডে মাদক নিয়ে দুই গ্রুপের মধ্যে দফায় দফায় সংঘর্ষ ঘটে। এতে করে মেরকাটিজ রোড কোহিনুর হলের সামনে মাদক ব্যবসায়ীরা দেশীয় অস্ত্র নিয়ে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাঙচুর করে।

চাঁদপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নাসিম উদ্দিন জানান, পুরান বাজারে দুই গ্রুপের সংঘর্ষের ঘটনায় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে ৭ রাউন্ড শটগানের গুলি নিক্ষেপ করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


সংবাদ পড়তে লাইক দিন ফেসবুক পেজে