September 29, 2020, 9:59 am


হাজীগঞ্জ গোল্ডেন হাসপাতালে হাত অপারেশন করতে গিয়ে চিরদিনের জন্য বিদায় নিলেন ৩ সন্তানের জননী

সাপ্তাহিক হাজীগঞ্জ রিপোর্ট॥

চাঁদপুরের হাজীগঞ্জের গোল্ডেন হাসপাতাল এন্ড সিটি স্ক্যান সেন্টার নামক একটি বে-সরকারি হাসপাতালে হাত অপারেশন করতে গিয়ে চিরদিনের জন্য বিদায় নিলেন ৩ সন্তানের জননী কুলসুমা বেগম (৩৩)। এ ঘটনায় রোগীর স্বজন প্রায় ৫/৬ ঘন্টা হাসপাতাল অবরুদ্ধ করে রাখে। পরে হাজীগঞ্জ থানার সেকেন্ড অফিসার এসআই ফারুক. এসআই জয়নাল আবেদীন, এএসআই মাহমুদ,সহ সঙ্গীয় ফোর্স এসে রোগীর স্বজনদের স্বান্ত¡না প্রদান করে সুষ্ঠু তদন্তের পর আইনানুগ ব্যবস্থা নিবে বললে রোগীর পরিবার শান্ত হয়। রাত সাড়ে ১১টায় জানাযা শেষে নিহত কুলসুমা বেগমকে হাজীগঞ্জ ঐতিহাসিক বড় মসজদি কমপ্লেক্সের কবরস্থানে দাফন করা হয়।

শুক্রবার দুপরে এ ঘটনা ঘটে। নিহত কুলসুমা বেগম মকিমাবাদ গ্রামের ইসমাইল হোসেনের স্ত্রী।

নিহত কুলসুমা বেগমের স্বামী ইসমাইল হোসেন হোসেন জানান, গোল্ডেন হাসপাতালের ডাক্তার রইসুল ইসলাম রুবেলের সাথে ৪০ হাজার টাকায় অপারেশনের চুক্তি হয়। চুক্তি অনুযায়ী টাকা প্রদান করা হয়। শুক্রবার দুপরে আমরা রোগীকে হাসপাতালে আনি। আমরা জুময়ার নামাজ পড়তে গেলে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ রোগীকে অপারেশন থিয়েটার রুমে নেয়। নামাজ পড়ে আসলে ডাক্তার জানান আপনারা রোগীকে দ্রুত কুমিল্লায় নিয়ে যান। কুমিল্লা টাওয়ার হাসপাতালে নেয়া হলে আইসিইউতে নেয়ার পূর্বে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানান, আপনাদের রোগী অনেক পূর্বেই মৃত্যুবরণ করেছে।

এ বিষয়ে অপারেশনের দায়িত্বে থাকা ডাক্তার কাউসার আহমেদ (কায়েস)কে তার বক্তব্য নেয়ার জন্য কয়েকবার ফোন করলেও তিনি ফোন রিসিভ না করায় তার বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (হাজীগঞ্জ-ফরিদগঞ্জ) ও (শাহরাস্তি-কচুয়া) এলাকা মো. আফজাল জানান, এ বিষয়ে থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করা হয়েছে। যদি রোগী পক্ষ কোন অভিযোগ দেয় তাহলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এ কর্মকর্তা আরো জানান, যদ্দুর শুনেছি রোগী পক্ষ ও হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ একটি সমাধান করেছে। তার পরেও অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


সংবাদ পড়তে লাইক দিন ফেসবুক পেজে